ফরিদপুরের সালথায় আওয়ামীলীগের দু গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ১, আহত অর্ধশতাধিক

স্টাফ রিপোর্টার ঃ
ফরিদপুরের সালথা উপজেলার আটঘড় ইউনিয়নের গোয়ালপাড়া এলাকায় আওয়ামীলীগের দুই ইউপি চেয়ারম্যান গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত হয়েছে জিয়া সেক(৩০) নামে এক যুবক। আর এ ঘটনায় আহত হয়েছে অর্ধশতের উপরে। রবিবার সকাল থেকে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।
সালথা থানার ওসি আমিনুল ইসলাম জানান, গতকাল শনিবার বিকেলে গোয়ালপাড়া বাজারে সালথা উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক ও আটঘড় ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শহীদুল ইসলাম সোহাগ খানের সমর্থক সুজনের সাথে জেলা শ্রমিকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও কানাইপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. বেলায়েত ফকিরের সমর্থক রেশানের সাথে কথাকাটাকাটি হয়। এরই জের ধরে আজ রবিবার সকাল থেকে বেলায়েত ফকিরের সমর্থকরা দেশীয় বিভিন্ন ধরনের ভারী অস্ত্র নিয়ে সোহাগ খানের গোয়ালপাড়া এলাকায় গিয়ে তাদের বাড়ী ঘেেড় হামলা ও ভাংচুর চালায়। এসময় হামলা ঢেকাতে এসে বেলায়েত ফকিরের সমর্থকদের হামালায় আহত হয় জিয়াসহ বেশ কিছু লোক। তাদেরকে উদ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে জিয়া মারা যায়। বাকি আহতদের ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সহ বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ জানায়, মেডিকেল থেকে জিয়া সেকের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। তিনি জানান, সালথা থানা পুলিশ ও ফরিদপুর জেলা পুলিশের সদস্যরা গিয়ে লাঠি চার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে। এলাকায় পর্যাপ্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে বর্তমানে।#

Leave a Reply