বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বেই দেশে গণতন্ত্র পুণরুদ্ধার হবে:কিরণ

শরীয়তপুর প্রতিনিধি :

বিএনপি চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বেই দেশে গণতন্ত্র পুণরুদ্ধার হবে। আর গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে সকলকে ঐক্যবদ্ধ ভাবে এগিয়ে আসতে হবে। দেশ আজ কারাগারে পরিণত হয়েছে। তাই দেশের এই ক্লান্তিলগ্নে খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের নেতৃত্বই প্রয়োজন। মঙ্গলবার জননেতা তারেক রহমান এর ১১ তম কারাবন্দি দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনায় শরীয়তপুর জেলা বিএনপির সভাপতি, বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির অন্যতম সদস্য ও সাবেক এমপি আলহাজ¦ সফিকুর রহমান কিরণ এসব কথা বলেন। এছাড়াও জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সরদার একেএম নাসির উদ্দীন কালু, সাংগঠনিক সম্পাদক আলহাজ¦ সাঈদ আহমেদ আসলাম, সদর উপজেলা সভাপতি সিরাজুল হক মোল্যা, পৌরসভা আহবায়ক এ্যাড. লুৎফর রহমান ঢালী, জেলা কৃষক দলের সভাপতি বিএম হারুন অর রশীদ, সাধারণ সম্পাদক ভিপি এ্যাড. মনিরুজ্জামান খান দিপু, যুবদলের সভাপতি ইজাজুল ইসলাম মামুন খান, সাধারন সম্পাদক নজরুল ইসলাম লিটন মুন্সী, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা আরিফুজ্জামান মোল্যা, কৃষক দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. মৃধা নজরুল কবির, সদর উপজেলা আহবায়ক বাবুল খান, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক মাহবুব আলম খায়ের, আমিনুর রহমান আমান, ইলোরা হাওলাদার সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দও জিয়া পরিবারের সকলের দীর্ঘায়ু কামনা করেন। তারা বলেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার নির্দেশে শরীয়তপুর জেলা বিএনপির সভাপতি সফিকুর রহমান কিরণ ও সাধারণ সম্পাদক সরদার একেএম নাসির উদ্দীন কালু’র নেতৃত্বে অতীতে জেলা বিএনপি ও অঙ্গসংগঠণ দলের সকল কর্মসূচীতে অংশগ্রহণ করেছেন। আগামীতেও দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ডাকা সকল কর্মসূচীতে অংশগ্রহণ করে দলের কর্মকান্ডকে আরও উজ্জ্বল করবে। এছাড়া সকল নেতৃবৃন্দ ঐক্যবদ্ধভাবে দলের জন্য কাজ করার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন। আর দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও তারুণ্যের অহংকার তারেক রহমানের  প্রতি কোন অবিচার হলে শরীয়তপুর থেকেই আন্দোলনের ঘোষণা দেন।

Leave a Reply