ফরিদপুরে মুক্তিযোদ্ধা নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা স্মারকগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

মাহবুব হোসেন পিয়াল ॥
ফরিদপুরের বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা,শিক্ষানুরাগী ও কবি নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা স্মারকগ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব রবিবার বিকেলে ফরিদপুর জেলা পরিষদ সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে।
স্মারক গ্রন্থ প্রকাশনা উৎসব কমিটির সভাপতি শামীম আরা বেগমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ফরিদপুর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন পুলিশ সুপার সুভাষ চন্দ্র সাহা, ফরিদপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা) শামসুল আলম, অধ্যাপক আলতাফ হোসেন, সাহিত্য পত্রিকা উঠোন এর সম্পাদক মফিজ ইমাম মিলন, কেন্দ্রীয় যুবলীগের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মিজানুল ইসলাম মিজু, সমাজকর্মী সমীর কুমার বোস, আজহারুল ইসলাম, মৃধা রেজাউল করিম প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা ছিলেন অনন্য গুণসম্পন্ন বিশাল হৃদয়ের একজন পরিপূর্ণ মানুষ। দেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধে তার অসামান্য অবদান রয়েছে। কোনো স্বীকৃতি না পেলেও তিনি নিজ কর্তব্যবোধ থেকে নিঃস্বার্থভাবে আজীবন মানুষের পাশে থেকেছেন।আজ দেশে তার মতো মানবদরদী ব্যক্তির বড় প্রয়োজন ছিল।পরে অতিথিরা স্মারকগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন করেন।
ফরিদপুরে মুক্তিযোদ্ধা নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা স্মারকগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন
মাহবুব হোসেন পিয়াল ॥
ফরিদপুরের বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা,শিক্ষানুরাগী ও কবি নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা স্মারকগ্রন্থের প্রকাশনা উৎসব রবিবার বিকেলে ফরিদপুর জেলা পরিষদ সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে।
স্মারক গ্রন্থ প্রকাশনা উৎসব কমিটির সভাপতি শামীম আরা বেগমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ফরিদপুর সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার মোহতেশাম হোসেন বাবর।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন পুলিশ সুপার সুভাষ চন্দ্র সাহা, ফরিদপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা) শামসুল আলম, অধ্যাপক আলতাফ হোসেন, সাহিত্য পত্রিকা উঠোন এর সম্পাদক মফিজ ইমাম মিলন, কেন্দ্রীয় যুবলীগের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মিজানুল ইসলাম মিজু, সমাজকর্মী সমীর কুমার বোস, আজহারুল ইসলাম, মৃধা রেজাউল করিম প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, নাসিরউদ্দিন আহমেদ মুসা ছিলেন অনন্য গুণসম্পন্ন বিশাল হৃদয়ের একজন পরিপূর্ণ মানুষ। দেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধে তার অসামান্য অবদান রয়েছে। কোনো স্বীকৃতি না পেলেও তিনি নিজ কর্তব্যবোধ থেকে নিঃস্বার্থভাবে আজীবন মানুষের পাশে থেকেছেন।আজ দেশে তার মতো মানবদরদী ব্যক্তির বড় প্রয়োজন ছিল।পরে অতিথিরা স্মারকগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন করেন।

Leave a Reply